ছাত্রলীগ প্রার্থীদের নামে সিলমারা ব্যালটের বস্তা উদ্ধার: ভোটগ্রহণ বন্ধ

ডাকসু নির্বাচনের প্রথম ঘণ্টাতেই ভোট জালিয়াতির অভিযোগ উঠেছে। জাল ভোটের অভিযোগে কুয়েত মৈত্রী হলের শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করছেন।

তারা এই ভোট গ্রহণ বর্জনের দাবি জানিয়েছেন গণমাধ্যমের সামনে। যে কারণে কুয়েত মৈত্রী হলে এই মুহুর্তে ভোটগ্রহণ বন্ধ রয়েছে। ঢাকা বিশ্বিদ্যালয়ের মতো জায়গায় এমন ভোট জালিয়াতির ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের আত্মসম্মান নষ্ট হয়েছে বলে বলছেন ছাত্রীরা।

বিক্ষুব্ধ শিকার্থীরা সিল দেওয়া ব্যালট পেপার নিয়ে হলের সামনে বিক্ষোভ করছেন। তারা বলছেন, ভোটগ্রহণ শুরুর আগে ভোটাররা ব্যালট পেপারা দেখতে চান। কর্তৃপক্ষ তা দেখালে অস্বীকৃতি জানালে একপর্যায়ে ক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা নিজেরাই অনুসন্ধান করে বস্তাবন্দি ব্যালট পেপার খুঁজে বের করে। তারপর সেইসব ব্যালট পেপার নিয়ে তারা হলের সামনে এসে বিক্ষোভ শুরু করে।

সীল মারা ব্যালট পেপার

গণমাধ্যমকর্মীদের সামনে তারা ব্যালট পেপারগুলো তুলে ধরেন, যেগুলোতে আগে থেকেই সিল দেওয়া ছিল। এই বিক্ষোভের মাঝেই মৈত্রী হলে প্রো-ভিসির গাড়ি প্রবেশ করতে দেখা যায়।

শিক্ষার্থীরা এই সময় সিল দেওয়া ব্যালট পেপারগুলো গাড়ির ওপর ছড়িয়ে দিয়ে প্রতিবাদ জানান। এসময় তারা ভোট বর্জন এবং জড়িতদের শাস্তির দাবিতে স্লোগান দিতে থাকেন। প্রো ভিসি শিক্ষার্থীদের শান্ত করার চেষ্টা করছেন।

Comments

comments