শতাধিক ভোট কেন্দ্র দখল ও জাল ভোটের অভিযোগ বিএনপির

গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে প্রায় শতাধিক ভোট কেন্দ্র দখল করে পুলিশের সহযোগিতায় আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসীরা জালভোট দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেছে বিএনপি।

মঙ্গলবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এ অভিযোগ করেন।

রুহুল কবির রিজভী অভিযোগ করেন, এখন পর্যন্ত আমাদের কাছে প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী প্রায় শতাধিক ভোট কেন্দ্র দখল করে আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসীরা পুলিশের সহযোগিতায় জালভোট দিচ্ছে। ভোট কেন্দ্রগুলো থেকে বিএনপির এজেন্টদের বের করে দেয়া হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

গাজীপুর নির্বাচন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, গত রাত থেকেই বিভিন্ন ভোট কেন্দ্রে আওয়ামী সন্ত্রাসীদের দ্বারা ভোট সন্ত্রাস, ব্যালট পেপার ও ব্যালট বাক্স ছিনতাই, জালভোট প্রদানসহ বিভিন্ন অনিয়ম ও সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চলছে।

নির্বাচন কমিশন এবং প্রশাসনের নাকের ডগায় এসব ঘটলেও প্রতিরোধ বা প্রতিকার দূরের কথা, বরং তারা এসব কর্মকান্ডে মদদ ও সহযোগিতা করছে।

গাজীপুর নির্বাচনে খুলনার মতো ঘটনার পুনরাবৃত্তি হবে না- প্রধান নির্বাচন কমিশনারের এ বক্তব্য উল্লেখ করে রিজভী বলেন, সিইসি’র এ বক্তব্য জনগণের সঙ্গে ধাপ্পাবাজি ও ধোকাবাজি ছাড়া আর কিছুই না।

কারণ তিনি তো সরকারের মাস্টারপ্ল্যানের বাইরে যেতে পারবেন না। নির্বাচন কমিশন প্রসঙ্গে রিজভী বলেন, বর্তমান অথর্ব ও সরকারের আজ্ঞাবহ ইসি দিয়ে কোনো নির্বাচনই সুষ্ঠু, অবাধ এবং নিরপেক্ষ হবে না। গাজীপুর নির্বাচনে কমিশন সেটিই প্রমাণ করলো।

পুলিশ বিভিন্ন কেন্দ্রে গিয়ে বলছে, গণমাধ্যমকে কেন্দ্রে ঢুকতে দেয়া হবে না- অভিযোগ করে তিনি বলেন, গণগ্রেপ্তার, কেন্দ্র দখল ও ধানের শীষ প্রতীকের এজেন্ট ও কেন্দ্র কমিটির সদস্যদের গণহারে গ্রেপ্তার করছে। সকাল ৬ টা থেকে পুলিশের এই গণগ্রেপ্তার শুরু হয় বলে জানান রিজভী।

সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট আহমদ আযম খান, এজেডএম জাহিদ হোসেন, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Comments

comments