জামায়াত নেতা ভেবে পীরপুত্র গ্রেফতার, দোয়া করতে বাধ্য করে ভিডিও করলো পুলিশ কর্তা!

চট্টগ্রামের আলোচিত প্রভাবশালী জামায়াত নেতা শাহজাহান চৌধুরীকে গ্রেফতার করতে গিয়ে এক পীরের ছেলেকে গ্রেফতার করেছে সাতকানিয়া থানা পুলিশ। পরে নিজেদের নির্বুদ্ধিতা ঢাকতে পীর পুত্র শাহজাদা শেখ ফরিদ আল কুতুবীকে দোয়া করতে বাধ্য করে পুলিশ। এসময় তার মোনাজাতের দৃশ্য মোবাইলে ধারন করেন এক পুলিশ কর্মকর্তা।

শনিবার রাতে সাতকানিয়া থানা পুলিশ প্রভাবশালী জামায়াত নেতা শাহজাহান চৌধুরী ভেবে সাতকানিয়া রাস্তার মাথা থেকে থানায় নিয়ে আসে কুতুবদিয়ার পীর মরহুম আবদুল মালেক এর পুত্র শেখ ফরিদ আল কুতুবীকে।

পরবর্তীতে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় তার পরিচয় নিশ্চিত করে ছেড়ে দেয়া হয়।

এ সময় সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান মোল্যা, অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মুজিবুর রহমান, থানার সেকেন্ড অফিসার এস আই সিরাজুল ইসলামসহ প্রায় সকল অফিসার উপস্থিত ছিল।

গ্রেফতার হওয়া শেখ ফরিদ আল কুতুবী জানান, তিনি কুতুবদিয়া থেকে চট্টগ্রাম নিজ বাসায় ফিরছিলেন। পথে পুলিশ জামায়াত নেতা শাহজাহান চৌধুরী মনে করে তাকে থানায় নিয়ে আসে। সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান মোল্যা জানান, পরিচয় নিশ্চিত করে তাকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

এদিকে শাহজাহান চৌধুরীকে গ্রেফতারের খবর ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয় সাংবাদিকরা থানায় উপস্থিত হন। তারা গিয়ে সেখানে দেখতে পান কুতুবদিয়ার পীর পুত্র শাহজাদা শেখ ফরিদ আল কুতুবীকে দেশ, সরকার ও জাতির কল্যাণ কামনা করে মোনাজাত করতে বাধ্য করছে পুলিশ। শুধু তাই নয়, কুতুবীর সেই মোনাজাতে অংশ গ্রহণ না করে উল্টো সেই মোনাজাতের ভিডিওচিত্র ধারণ করছিলেন একজন পুলিশ কর্তা।

Comments

comments