হঠাৎ আঁধারে ছেয়ে গেল রাজধানী!

সকালবেলাই চারদিক অন্ধকার করে এলো সন্ধ্যা! কালো মেঘে ঢেকে যায় আকাশ। বোঝার উপায়ই ছিল না সকাল নাকি রাত। যারা আজ একটু দেরী করে ঘুম থেকে উঠেছেন তারা হয়তো বুঝতে পারেননি ব্যাপারটা।

সকাল ১১টার দিকেই নামলো প্রচণ্ড ঝড় সাথে বৃষ্টিও। কালো মেঘে ঢেকে থাকা আঁধার চিরে বিজলী চমকানোসহ বজ্রপাত হচ্ছে এখন রাজধানীজুড়ে। আকস্মিক এ ঝড়ের বেগ ছিল প্রচণ্ড। হঠাৎ এ ঝড়ে চরম দুর্ভোগে পড়ে নগরবাসী।

রাজধানীর মিরপুর, বারিধারা, বাড্ডাসহ কয়েকটি এলাকায় ঝড়ে রাস্তার পাশের সাইনবোর্ড, টং দোকান উল্টে যায়। উপড়ে পড়ে ছোট-বড় বিভিন্ন ধরনের গাছও। অন্ধকারে ঝড়ের মধ্য যানবাহন চলাচল সীমিত হয়ে যায়।

এদিকে আজ সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আবহায়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপের বর্ধিতাংশ অবস্থান করছে। ফলে রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ, ঢাকা, খুলনা ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ী দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে শিলা বৃষ্টি হতে পারে।

এছাড়া সারাদেশে দিনের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে। আজ ঢাকায় সূর্যোদয় হয়েছে ভোর ৫ টা ২৬ মিনিটে এবং সূর্যাস্ত হবে সন্ধ্যা ৬ টা ২৭ মিনিটে। গতকাল দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল যশোরে ৩৬.২ ডিগ্রি এবং সর্মনিম্ন তাপমাত্রা ছিল তেতুঁলিয়ায় ১৯.৮ ডিগ্রি।

Comments

comments