সাবেক শিবির নেতা পলাশকে তুলে নেয়ায় পরিবারের উদ্বেগ

সাবেক শিবির নেতা মোস্তাফিজুর রহমান পলাশ (ফােইল ফটো)

কুষ্টিয়ায় জামিনে বের হবার পর জেলগেট থেকে পুলিশ কর্তৃক পুনরায় গ্রেপ্তারকৃত কুষ্টিয়া শহরের সাবেক সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান পলাশকে সন্ধান দাবী করে বিবৃতি প্রদান করেছে তার পরিবার।

বিবৃতিতে গ্রেপ্তারকৃ মোস্তাফিজুর রহমান পলাশের পিতা সিরাজুল ইসলাম বলেন, গত ১৮ এপ্রিল তাকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে আদালতে হাজির করলে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। আজ ২৬শে এপ্রিল সন্ধ্যা ৬টা ৩০ মিনিটে আইনি প্রক্রিয়ায় মামলায় জামিন পেয়ে বের হলে কারাগারের মেইন ফটক থেকে সাদা পোষাকে থাকা ডিবি পুলিশের সদস্যারা তাকে উঠিয়ে নিয়ে যায়। পুলিশও তার গ্রেপ্তারের কথা স্বীকার করছে না। শত চেষ্টা করেও সে এখন কোথায় আছে কি অবস্থায় আছে কিছুই জানতে পারছি না। আমরা বার বার আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর বিভিন্ন সংস্থার কাছে শরনাপন্ন হয়েও তার সন্ধান পাচ্ছিনা।

তিনি বলেন, আমি আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের কাছে আমার সন্তানের নিরাপত্তা দাবি করছি। তাকে আটক বা গ্রেফতারের কথা অস্বীকার করায় আমরা আমাদের সন্তানের ব্যাপারে গভীরভাবে উদ্বীগ্ন হয়ে পড়েছি। আমার জানামতে আমার ছেলে কোন অপরাধের সাথে জড়িত নয়। সে আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আইনি প্রক্রিয়ায় জামিন নিয়ে বেরিয়ে এসেছিল। সুতরাং আইনশৃঙ্খলা বাহীনির কাছে আমাদের আবেদন তাকে যেন আইন অনুযায়ী দ্রুত আদালতে উপস্থাপন করা হয়। দেশের অন্য সকল নাগরিকের মত আইনের আশ্রয় নেয়ার অধিকার আমাদেরও আছে। শুধু রাজনৈতিক কারণে যেন তাকে সরকারের অত্যাচারের মুখে পড়তে না হয়। আমি এখন সন্তানের জীবন নিয়ে শঙ্কিত। আমি জাতীয় মানবাধিকার সংস্থাসহ দেশি বিদেশি বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনের কাছে আমার সন্তানের আইনের আশ্রয় পাবার অধিকারের ব্যাপারে সোচ্চার হওয়ার জন্য বিশেষ ভাবে অনুরোধ করছি। আমার ছেলে মোস্তাফিজুর রহমানের জান মালের কোন ক্ষতি হলে তার দায়ভার সরকার ও আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকেই নিতে হবে।

আমরা এদেশের নাগরীক। আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল এবং সকল আইনি সুবিধা গ্রহণ করার অধিকার আমাদের আছে। কিন্তু এখানে আইনি অধিকার থেকে আমরা বঞ্চিত হচ্ছি। আমি আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের কাছে আমার সন্তানের নিরাপত্তা দাবি করছি। একই সাথে তিনি সন্তানের সন্ধানের জন্য সাংবাদিকসহ সংশ্লিষ্ট সকলের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

Comments

comments