প্রবাসীরা ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হচ্ছেন

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশী নাগরিকদের ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। গত ১৮ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার কমিশনের ১৭তম সভায় এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
প্রবাসীদের ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করার প্রক্রিয়া ঠিক করতে আগামী ২৭ ফেব্র“য়ারির ঢাকার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে একটি সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে।

সেমিনারে যেসব সুপারিশমালা প্রণয়ন করা হবে এর আলোকে প্রবাসী ভোটার তালিকা নীতিমালা প্রণয়ন করা হবে বলে নির্বাচন কমিশনার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাত হোসেন চৌধুরী জানান।
আগামী ২৭ ফেব্র“য়ারি সেমিনারে প্রবাসী সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, প্রতিষ্ঠান, দপ্তর, সংস্থার প্রতিনিধি, গণ্যমান্য ব্যক্তি, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি এবং বিভিন্ন অংশীজনদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।

ওই দিন সকাল ১০টায় অনুষ্ঠেয় সেমিনারে বিদেশে অবস্থানরত প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকদের সংশ্লিষ্ট দেশেই ভোটার হিসেবে নিবন্ধন, জাতীয় পরিচয়পত্র প্রদান এবং কোন প্রক্রিয়ায় তারা তাদের প্রয়োগ করবেন এ বিষয়ে মতামত বা সুপারিশ গ্রহণ করা হবে। শাহাদাত হোসেন চৌধুরী বলেন, প্রাথমিক পর্যায়ে কোন কোন দেশে অবস্থানরত প্রবাসীদের ভোটার করা হবে তা সেমিনারের পরই সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। সেমিনারে অংশগ্রহণকারী বিশেষজ্ঞদের মতামতের আলোকে কমিশন তার পরবর্তী করণীয় নির্ধারণ করবে।

কমিশনের একটি সূত্র জানায়, প্রাথমিকভাবে বিশ্বের যেসব দেশে বাংলাদেশি নাগরিক বেশি রয়েছে, সেসব দেশগুলোকেই প্রাধান্য দেয়া হবে। এ ক্ষেত্রে সৌদি আরব, মালয়েশিয়া, কাতার, সংযুক্ত আরব আমিরাতে অবস্থানরত প্রবাসীদের আগে ভোটার করা হতে পারে। পর্যায়ক্রমে সক্ষমতার পরিধি বাড়িয়ে বিশ্বের অন্যান্য দেশে অবস্থানরত প্রবাসীদের ভোটার করবে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

তালিকায় যুক্ত হওয়া নতুন ভোটাররা আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবেন কিনা সে বিষয়েও কমিশন এখনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। ইসি কর্মকর্তারা জানান, বিশ্বের ১৫৭টি দেশে প্রায় ১ কোটির ওপর বাংলাদেশি বসবাস করছেন।

Comments

comments