শৈলকুপায় এবার ট্রাক ব্যাবসায়ী নিখোঁজ, পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ

নিখোঁজ রিয়াজুল ইসলাম লিপটন

ঝিনাইদহঃ গরু ব্যবসায়ীর পর শৈলকুপায় এবার রিয়াজুল ইসলাম লিপটন (২৬) নামে এক ট্রাক ব্যবসায়ী নিখোঁজ হয়েছেন।

গত ২৩ দিন ধরে লিপটনের কোন হদিস নেই। তিনি ঝিনাইদহের শৈলকুপা শহরের হাবিবপুর গ্রামের আব্দুল খালেকের ছেলে।

এ ব্যাপারে নিখোঁজ লিপটনের পিতা আব্দুল খালেক শৈলকুপা থানায় সাধারণ ডায়েরি (ডায়েরি নং-৭০৯) ও শৈলকুপার বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে শারমিন আক্তার তানিয়া নামে এক মহিলাকে আসামী করে মামলা করেছেন। যার মামলা নং ০৩/১৮। শারমিন আক্তার তানিয়া শৈলকুপার কাজী পাড়ার মৃত আশরাফুল আলমের স্বামী পরিত্যাক্তা মেয়ে। আদালত বাদীর নালিশী আবদেনটি আমলে নিয়ে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) ঝিনাইদহ কে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

বাদী তার নালিশী আবেদনে উল্লেখ করেছেন, আসামীর সাথে তার ছেলে রিয়াজুল ইসলাম লিপটনের ব্যবসায়ীক লেনদেন ছিল। এ কারণে প্রায় রিয়াজুল ইসলাম লিপটন তানিয়ার বাড়িতে যাতায়াত করতো। গত ৪ জানুয়ারী তানিয়া তার ছেলেকে বাসায় ডেকে পাঠায়। সে মোতাবেক বন্ধু বাবু মটরসাইকেলে করে লিপটনকে রাতের বেলা তানিয়ার বাসায় পৌছে দেয়। পথিমধ্যে তানিয়া আবারো লিপটনকে ফোন করে বাসায় একা আসতে বলে। এরপর থেকেই লিপটনের কোন খোঁজ মিলছে না।

তার ব্যবহৃত মোবাইলও বন্ধ রয়েছে। বাদীর আশংকা আসামী বহিরাগতদের দিয়ে তার ছেলেকে হত্যার পর লাশ গুম করতে পারে। বিষয়টি নিয়ে শারমিন আক্তার তানিয়া জানান, তার বিরুদ্ধে থানায় জিডি বা আদালতে মামলা হয়েছে কিনা জানি না। তিনি বলেন রিয়াজুল ইসলাম লিপটনের সাথে কোন ব্যাবসায়ীক লেনদেন ছিল না, বরং সে ট্রাক ড্রাইভার ছিল। আমার একটি ট্রাক মেরামত করা নিয়ে লিপটনের সাথে প্রায় কথা হতো।

তিনি আরো বলেন, রিয়াজুল ইসলাম লিপটন রাজনীতি করার কারণে তার বিরুদ্ধে অনেক মামলা ছিল। এবং সে নিরাপদ ভেবে আমার ইটভাটা এলাকায় থাকতো। তিনি প্রশ্ন রেখে বলেন, আমি মহিলা হয়ে কি করে একজন পুরুষ মানুষকে হত্যা করতে পারি ? এদিকে বিবাদী শারমিন আক্তার তানিয়া বক্তব্য খন্ডন করে নিখোঁজ লিপটনের মামা আরিফুজ্জামান শিপলু জানান, লিপটনের ঢাকায় অনেক ব্যবসা ছিল। সে স্টুডিও, কম্পিউটার ও কসমেটিকের ব্যবসা ছেড়ে শৈলকুপায় ট্রাকের ব্যবসা করতো।

লিটপনের ঢাকা মেট্রা-ট-১৮-৮৪৫৭ ও ঝিনাইদহ-ট-১১-১২৯৪ ট্রাক আছে। তানিয়া ট্রাক ড্রাইভার বলে যে কথা বলেছে তা সত্য নয়। সেই দুর্বৃত্ত দিয়ে লিপটনকে গুম করেছে বলে দাবী করেন আরিফুজ্জামান শিপলু। বিষয়টি নিয়ে শনিবার বিকালে শৈলকুপা থানার ওসি আলমগীর হোসেনের সরকারী মোবাইলে একাধিকবার ফোন করা হলে তার মুঠোফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়।

উল্লেখ্য শৈলকুপা উপজেলার আড়ুয়াকান্দি গ্রামের গরু ব্যবসায়ী মসলেম উদ্দীন (৩২) ৯ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছেন। তিনি উমেদপুর ইউনিয়নের আড়–য়াকান্দি গ্রামের হাকিম বিশ্বাসের ছেলে। গত ১৮ জানুয়ারী মসলেম কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার বাঁশগ্রাম ও পান্টি এলাকায় গরু কেনা-বেচার জন্য তিনি বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন। তার কাছে নগদ অনেক টাকা ছিল।

Comments

comments