মৈত্রী এক্সপ্রেসে শ্লীলতাহানির ঘটনায় বিএসএফ সদস্য বরখাস্ত

ঢাকা ও কলকাতার মধ্যে চলাচলকারী মৈত্রী এক্সপ্রেসে বাংলাদেশের নারী যাত্রীর শ্লীলতাহানির ঘটনায় অভিযুক্ত বিএসএফ জওয়ানকে বরখাস্ত করা হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিএসএফের এক প্রেসনোটে জানানো হয়, ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে এবং অভিযুক্ত জওয়ান ভিরানা ভাইকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

একই সঙ্গে ভারতীয় পূর্বরেলের সাথে এ বিষয়ে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে তারা জানিয়েছে।

সোমবার সকালে কলকাতা থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়ার পর মৈত্রী এক্সপ্রেসের এ-১ বগির এক বাংলাদেশি নারীযাত্রীর শ্লীলতাহানি করা হয় বলে যাত্রীর স্বামী লিখিত অভিযোগ করেছিলেন।

এই ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে পূর্ব রেলের প্রধান জনসংযোগ কর্মকর্তা রবি মহাপাত্র বলেছেন ভারতী রেল পুলিশ তদন্ত করছে।

জানা গেছে বিএসএফ ৯৯ নম্বর ব্যটেলিয়নের ২০ জন জওয়ান মৈত্রী এক্সপ্রেসে নিরাপত্তার কাজে নিয়োজিত। তবে অভিযুক্ত জওয়ানকে এখনো গ্রেফতার করা হয়নি।

বাংলাদেশি নারী যাত্রীর সঙ্গে তার স্বামী, ছেলে এবং দেবর ছিলেন। ১৯ জানুয়ারি তারা ভারত বেড়াতে আসেন। সোমবার ফিরে যাওয়ার সময় কেবিনের বাথরুমে গিয়েছিলেন ওই নারীযাত্রী। সেখানেই বসে ছিলেন অভিযুক্ত বিএসএফ জওয়ান। নারী যাত্রী বাথরুম থেকে বের হওয়ার পর বিএসএফ সদস্য তার শ্লীলতাহানি করেন। এসময় বন্দুক উঁচিয়ে গুলি করারও ভয় দেখান ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর ওই সদস্য।

অভিযোগের প্রাথমিক সত্যতা মিলেছে বলে প্রেসনোটে স্বীকার করেছে বিএসএফ।

Comments

comments