বাংলাদেশ থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনতে চায় লেবানন

বাংলাদেশ থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনতে চায় লেবানন। লেবানন সফররত বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের সঙ্গে সাক্ষাতকালে এ ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেন লেবানিজ নৌ বাহিনীর প্রধান। বিষয়টিকে নৌ কূটনৈতিক তৎপরতার ইতিবাচক নমুনা হিসেবেই দেখছে বাংলাদেশ নৌ বাহিনী।

বিশ্বের একমাত্র মেরিটাইম টাস্কফোর্সের অধীনে ভূ-মধ্য সাগরে লেবাননের জলসীমায় শান্তি রক্ষায় আরো ৫ টি দেশের ৭ বছর ধরে দায়িত্ব পালন করছে বাংলাদেশ নৌ বাহিনী। দক্ষতা যোগ্যতা আর কর্মতৎপরতায় ইতোমধ্যেই জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক মহলের দৃষ্টি কেড়েছে এই বাহিনী।

এরই প্রতিফলন দেখা যায় বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের সঙ্গে লেবানিজ নৌ বাহিনী প্রধানের বৈঠকে। শুক্রবার বৈরুতে লেবানন নৌ সদর দপ্তরে অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে বাংলাদেশ থেকে সামরিক সরঞ্জাম কেনার আগ্রহ প্রকাশ করেন দেশটির নেভাল চিফ।

লেবানন নৌ বাহিনীর কমান্ডার ইন চীফ আর এ হোসনী দাহের বলেন, ‘বাংলাদেশ নৌবাহিনী অন্যদের চেয়ে আলাদা। লেবানিজ এবং বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর মধ্যে সুসম্পর্ক বিরাজ করছে। আশা করি, প্রশিক্ষণসহ অন্যান্য সহযোগিতা অব্যাহত রেখে সম্পর্ক আরও দৃঢ় করবে বাংলাদেশ।’

লেবানন নৌ বাহিনীকে সাধ্যমতো সব ধরনের সহায়তা করার আশ্বাস দেন বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারা।

বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর কমোডর এম নাজমুল করিম কিসলু বলেন, ‘বাংলাদেশ নৌবাহিনীর পক্ষ থেকে লেবাননের নৌবাহিনীর উন্নতির জন্য বিভিন্ন প্রকার প্রশিক্ষণ কোর্সের প্রস্তাব আমরা করেছি। তারাও এই ধরণের প্রশিক্ষণ নিতে আগ্রহী। একই সঙ্গে তারা হয়তো আমাদের কাছ থেকে ভবিষ্যতে বিভিন্ন ধরণের সরঞ্জাম, যন্ত্রপাতি কেনা এবং এগুলোর রক্ষণাবেক্ষণের জন্য প্রশিক্ষণ নেবে।’

দক্ষতা বাড়াতে লেবানিজ নৌ বাহিনীকে বিভিন্ন প্রশিক্ষণ দেয়ারও আশ্বাস দেন তারা।

বাংলাদেশ থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনে নিজেদের শক্তি বাড়াতে চায় লেবানিজ নৌবাহিনী। এতেকরে বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের সামরিক সরঞ্জামের বাজার তৈরির হাতছানি দেখছেন সংশ্লিষ্টরা।

Comments

comments