‘জেরুজালেম আমাদের, আমরা আত্মসমর্পণ করব না’

ফিলিস্তিনি শহীদ আব্রাহাম আবু সুরিয়া

ফিলিস্তিনি শহীদ আব্রাহাম আবু সুরিয়া

শুক্রবার ইসরাইলি বাহিনীর হাতে ফিলিস্তিনিআব্রাহাম আবু সুরিয়াশহীদ হওয়ার আগে শেষ বাক্য ছিল, ‘এই ভূখণ্ড (জেরুজালেম) আমাদের, আমরা আত্মসমর্পণ করব না।’ আনাদলু এজেন্সির সংবাদ।

ফিলিস্তিনি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানায়, এদিন গাজার পূর্ব সীমান্তে ইসরায়েলি সেনাদের গুলিতে দুই ফিলিস্তিনি তরুণ শহীদ হন। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র আশরাফ আল-ক্বাদরা জানান, তাদের মধ্যে একজন ছিলেন ২৯ বছর বয়সী আবু সুরিয়া।

উল্লেখ্য, ইব্রাহিম আবু সুরিয়া ২০০৮ সালে গাজায় চালানো ইসরাইলের সর্বাত্মক সামরিক অভিযানে দুই পা হারিয়েছিলেন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, তখন প্রতিদিনই তাকে ইসরাইলি বাহিনীদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভরত অবস্থায় দেখা গিয়েছিল।

শুক্রবার বিক্ষোভে সময় অন্যান্য প্রতিবাদকারী ফিলিস্তিনিদের উপস্থিতিতে তার বক্তব্য ওঠে আসে এক ভিডিও চিত্রে। সেখানে তাকে বলতে দেখা যায়, ‘আমি ইসরাইলি বাহিনীকে একটা কথাই বলতে এসেছি, এটি আমাদের ভূখণ্ড। ট্রাম্পের ঘোষণায় আমরা এর অধিকার কিছুতেই ত্যাগ করব না। আমরা আমাদের বিক্ষোভ চালিয়ে যাব।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা ইসরাইলি সেনাবাহিনীকে চ্যালেঞ্জ জানাচ্ছি, ফিলিস্তিনিরা হচ্ছে বীরের জাতি।’

আহত আব্রাহাম আবু সুরিয়া

এদিকে গাজা সীমান্ত ও অধিকৃত পশ্চিম তীরের রামাল্লায় বিক্ষোভে বড় ধরনের সংঘর্ষ ঘটেছে। সেখানে ইসরাইলি বাহিনীর গুলিতে আরও একজন ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন অন্তত একশ জন ফিলিস্তিনি।

প্রসঙ্গত, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ৬ ডিসেম্বর জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী এবং তেলআবিব থেকে মার্কিন দূতাবাস জেরুজালেমে স্থানান্তরের ঘোষণা দেন। এ ঘোষণায় বিশ্বব্যাপী নিন্দার ঝড় উঠে।

যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, জার্মানি, তুরস্ক, ইরান, রাশিয়া ও চীনের পাশপাশি জাতিসংঘসহ বিশ্বের বিভিন্ন সংগঠন ও সংস্থা ট্রাম্পের এই একতরফা ঘোষণার নিন্দা জানায়।

শহীদ আব্রাহাম আবু সুরিয়ার লাশ নিয়ে ফিলিস্তিনিদের বিক্ষোভ

ট্রাম্পের ঘোষণার পর ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ সংগঠন হামাস গণঅভ্যুত্থানের ডাক দেয়। সর্বাত্মক প্রতিরোধের ডাক দেয় অপর সংগঠন ফাতাহ। শুক্রবার পর্যন্ত বিক্ষোভে গুলি করে ৮ ফিলিস্তিনিকে হত্যা করে দখলদার ইসরাইলি সেনারা। আটক করে কয়েশ’ ফিলিস্তিনিকে।

Comments

comments