বিজয়ের লক্ষ্য বাস্তবায়নে তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে আসতে হবে – শিবির সভাপতি

বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবিরের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইয়াছিন আরাফাত বলেন,শুধু আনুষ্ঠানিকতা দিয়ে অসীম ত্যাগের এই মহান বিজয়ের স্বপ্ন বাস্তবায়ন সম্ভব নয়। বাংলাদেশকে সমৃদ্ধ দেশ হিসেবে গড়তে হলে সৎ, দক্ষ ও দেশপ্রেমিক নেতৃত্বের প্রয়োজন। এর জন্য প্রয়োজন বাস্তব পদক্ষেপ। তাই বিজয়ের স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করতে তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে আসতে হবে।

আজ রাজধানীর এক মিলনায়তনে ছাত্রশিবির ঢাকা মহানগরী পশ্চিম শাখা আয়োজিত মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে মাসব্যাপী কর্মসূচির অংশ হিসেবে ফ্রি ব্লাড গ্রুপিং অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। শাখা সভাপতি ডাঃ মুজাহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারি আব্দুল আলিমের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে আরো উপস্হিত ছিলেন কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক খালেদ মাহমুদ, মহানগরী সাংগঠনিক সম্পাদক যোবাইর হোসেন রাজনসহ মহানগরী নেতৃবৃন্দ।

শিবির সভাপতি বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে চূড়ান্ত বিজয় অর্জন করলেও অর্জন করতে পারিনি কাঙ্খিক্ষত মানের সামাজিক, অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক উন্নয়ন। জুলুমকারীদের বিরুদ্ধের দেশের মানুষের এ বিজয় শুধু একটি ভূখন্ডের জন্য ছিল না বরং তা ছিল রাজনৈতিক সমতা, অর্থনৈতিক মুক্তি ও ঐক্যবদ্ধ সমৃদ্ধ জাতি গঠনের দৃঢ় প্রত্যয়ের বিজয়। আমরা বিজয় পেয়েছি অল্প সময়ে কিন্তু বহু বছর পেরিয়ে গেলেও সমৃদ্ধ জাতি গঠনের স্বপ্ন এখনো স্বপ্নই রয়ে গেল। একটি সমৃদ্ধ ও উন্নত জাতি গঠনের সকল যোগ্যতা এবং সম্পদ আমাদের আছে। কিন্তু রক্তে অর্জিত এ দেশ এখনো সৎ দক্ষ ও দেশপ্রেমিকের সমন্বয়ে যোগ্য নেতৃত্বে পায়নি। ফলে একই সময়ে স্বাধীনতা পাওয়া অনেক দেশ সমৃদ্ধির উচ্চ শিখরে আরোহন করলেও আমরা পেছনেই পড়ে আছি। অসৎ ও আদর্শহীন নেতৃত্ব এ অর্জনকে দেশের সমৃদ্ধির জন্য কাজে লাগাতে ব্যর্থ হয়েছে। বিজয়ের চেতনা দেশ ও জাতির কল্যাণে নয় বরং রাজনৈতিক পুঁজিতে পরিণত হয়েছে। যা একদিকে মহান বিজয়ে আতœত্যাগকারীদের রক্তের সাথে প্রতারণা অন্যদিকে জাতির জন্য চরম হতাশার বিষয়।

তিনি বলেন, আজকের তরুণ সমাজ দেশ-জাতির অগ্রগতি উন্নয়নে অবদান রাখবে এটাই জাতির প্রত্যাশা। কিন্তু সে প্রত্যাশা পূরণের বিপরীতে তরুণদের একাংশ আজ বিপথগামী। শুধু বিপথগামীই নয়, তারা আজ ভয়ঙ্কর সর্বনাশা পথে হাঁটছে। মাদক, সন্ত্রাসের ভয়ঙ্কর পথ তরুণদের শেষ করে দিচ্ছে। আজকের তরুণদের ওপর দেশ-জাতির ভবিষ্যৎ নির্ভর করে। কারণ তারা সমৃদ্ধ দেশ-জাতি গঠনের মূল কারিগর। সত্যিকার অর্থে বিজয়কে অর্থবহ করতে তরুণ সমাজকেই মূল ভূমিকা পালন করতে হবে। তরুণ সমাজের দৃঢ় প্রত্যয় একটি দেশের চিত্র পাল্টে যেতে পারে। অপ্রাপ্তিকে জয় করেই তারা এগিয়ে যায়। তারা স্বপ্ন দেখে সমাজ পরিবর্তনের। তারা অসম্ভবকে জয় করতে চায়। এটাই তারুণ্যের মৌলিক বৈশিষ্ট্য। সমৃদ্ধ দেশ গড়তে দৃঢ় প্রত্যয়ী দু:সাহসি সৎ ও যোগ্যতা সম্পন্ন একটি তরুণ প্রজন্ম গড়ে তুলতে ছাত্রশিবির সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। যে প্রচেষ্টা শত অপপ্রচার ও পাহাড়সম প্রতিকূলতার মাঝেও অব্যাহত আছে এবং থাকবে ইনশাআল্লাহ। -প্রেস বিজ্ঞপ্তি

Comments

comments