মারা গেছে বৃদ্ধ চেহারার সেই বায়েজিদ

মাগুরায় বিরল প্রজেরিয়া রোগে আক্রান্ত শিশু বায়েজিদ মারা গেছে; যে রোগের জন্য পাঁচ বছর বয়সেই তাকে দেখাত বৃদ্ধের মতো।

সোমবার সন্ধ্যায় ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বায়েজিদের মৃত্যু হয়েছে বলে জানান তার বাবা লাবলু শিকদার জানান।

তিনি বলেন, পেট ফুলে যাওয়ায় রোববার রাত সাড়ে ১২টার দিকে বায়োজিদকে মাগুরা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে ভোরে তাকে ফরিদপুর মেডিকেলে নেওয়া হয়।

সেখানে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে সে মারা যায় বলে জানান তিনি।

মঙ্গলবার খালিয়া নিজ গ্রামে বায়োজিদের দাফন হবে।

বায়োজিদকে নিয়ে গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হলে মাগুরা সদর হাসপাতাল গঠিত মেডিকেল বোর্ড তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠায়। ঢাকায় দেড় মাস চিকিৎসা করালেও তার শরীরিক অবস্থার কোনো পরিবর্তন না হওয়ায় তাকে বাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়।

তার পর থেকে সে আরও অসুস্থ হয়ে পড়লে মাগুরা সদর হাসপাতালের চিকিৎসক দেবাশিষ বিশ্বাসের অধীনে তার চিকিৎসাধীন চলছিল।

দেবাশিষ বিশ্বাস বলেন, চামড়া বেড়ে বায়েজিদের প্রস্রাবের রাস্তা বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। এবস্থায় তার অস্ত্রোপচার প্রয়োজন ছিল। কিন্তু জন্মগতভাবে জটিল প্রজেরিয়া রোগে আক্রান্ত হওয়ায় তার অস্ত্রোপচার অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ ছিল।

Comments

comments