ভাগ্নিকে পানিতে চুবিয়ে হত্যা করলো মামা

আড়াইহাজারে সাফিয়া (৮) নামের শিশুকে তারই আপন মামা পানিতে চুবিয়ে হত্যা করেছে। উপজেলার ব্রাহ্মন্দী ইউনিয়নের মনোহরদী শিলবাড়ী গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। নিখোঁজের এক দিন পর বুধবার বিকালে থানা পুলিশ মনোহরদী গ্রামের পাশে ইমেজ ফ্যাক্টরীর নিকটে একটি নদী থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। ২৮ নভেম্বর মঙ্গলবার থেকে সাফিয়া নিখোঁজ ছিলেন।

নিহত সাফিয়া ওই গ্রামের শাহীন মিয়ার মেয়ে। ঘাতক মামা জুয়েল একই গ্রামের শহিদ মিয়ার ছেলে।

আড়াইহাজার থানার ওসি এম এ হক জানান, নিহত সাফিয়া ঘাতক জুয়েলের আপন ভাগ্নী হয়। সাফিয়ার মায়ের জমি আত্মসাৎ করার জন্য তারই মামা তাকে বাড়ী থেকে ডেকে নিয়ে পানিতে চুবিয়ে হত্যা করে। এই ঘটনায় সাফিয়ার মা সুমি আক্তার বাদী হয়ে বৃহস্পতিবার রাতে আড়াইহাজার থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। সাফিয়া পানিতে পড়ে মারা গেছে বলে বিষয়টি ধামাচাপা পড়ে যাওয়ার উপক্রম হয়েছিল। সেই সময়ে ইমেজ ফ্যাক্টরীর সিসি ক্যামেরায় দেখা যায় কে যেন একটি শিশুকে পানিতে চুবিয়ে হত্যা করছে। পরে সিসি ক্যামেরা দেখে ১দিন পর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। ওসি জানান, আসামী গ্রেফতারের জন্য বিভিন্ন স্থানে অভিযান চলছে।

Comments

comments