রেকর্ড গড়েই সেজদা দিলেন হাসান আলি

বিপিএলের এবারের আসরে প্রথমবারের মতো কোনো বোলার পাঁচ উইকেট শিকারের রেকর্ড গড়লেন। সেই দুর্ধর্ষ বোলার হলেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের হাসান আলি।

আজ ঢাকার বিপক্ষে ২০ রান দিয়ে শিকার করেন পাঁচটি উইকেট। আর পঞ্চম উইকেট শিকারের পর পরই সেজদা করেন এই পাকিস্তানি ক্রিকেটার। তার উইকেটের সাথে শেষ হয় ঢাকার ইনিংস। ১৮.৩ ওভারে ১২৮ রান সংগ্রহ করে তারা।

১২৯ রানের লক্ষ্য নিয়ে ব্যাট করতে নামবে কুমিল্লা।

উল্লেখ্য, বিপিএলেই সবচেয়ে কম রানে ৫ উইকেট শিকারের রেকর্ডটি গড়েন আরেক পাকিস্তানি বোলার মোহাম্মদ সামি। তিনি ৬ রান দিয়ে শিকার করেন ৫ উইকেট।

জহুরুলের সংগ্রাম শেষ হলো

১৬তম ওভারের খেলা চরছিল। আফগানিস্তানের দুর্ধর্ষ স্পিনার রশিদ খান এলেন বল হাতে। স্ট্রাইকে জহুরুল ইসলাম। রশিদের বল কোনোভাবেই খেলতে পারছিলেন তিনি। পর পর চার বলে শূন্য। রান তুলতে সংগ্রাম চালিয়ে যাচ্ছিলেন তিনি। অতঃপর পঞ্চম বলে আর বাঁচতে পারলেন না। এলবিডব্লিউ হলেন।

৮ বলে মাত্র ২ রান নিয়ে সাজঘরে ফিরলেন জহুরুল। রশিদের বলে সংগ্রাম শেষ হলো তার।

তামিমের মাটি কামড়ানো ক্যাচ
শুরু থেকেই চার-ছক্কার ঝড় তুলে ছিলেন উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান সুনীল নারাইন। সেই সুবাদে উইকেট হারানোর পরও দ্রুত ভালো স্কোর দাঁড় করায় ঢাকা ডায়নামাইটস। ৪৫ বলে তিনি সংগ্রহ করেন ঝড়ো ৭৬ রান। হাঁকিয়েছেন ৭ বাউন্ডারি ও ৫ বাউন্ডারি।

সাইফউদ্দিনের ওভারের চতুর্থ বলে তামিম ইকবালের হাতে বন্দি হন নারাইন। দুর্দান্ত এক মাটি কামড়ানো ক্যাচ নিয়েছেন তামিম। এ সিদ্ধান্ত নিতে অনেক ঘাম ঝরাতে হয়েছে থার্ড অ্যাম্পায়ারকে। লম্বা সময় পার তিনি সিদ্ধান্ত জানিয়েছেন।

আউট হওয়া সেই ওভারে ৩ বলে নারিন হাঁকিয়েছেন ১০ রান।

তার পরের ওভারেই রশিদ খানের বলে সাজঘরে ফিরেছেন কাইরন পোলার্ড।

ব্যাটিং করছে ঢাকা

বিপিএলের ২১তম ম্যাচে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের বিপক্ষে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করছে ঢাকা ডায়নামাইটস।

এবারের আসরে এটি ঢাকার সপ্তম ম্যাচ। আর কুমিল্লার ষষ্ঠ ম্যাচ।

৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে রয়েছে ঢাকা। ৮ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের দ্বিতীয়স্থানে কুমিল্লা।

ঢাকা ডায়নামাইটস দল : সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক), সুনীল নারাইন, এভিন লুইস, মেহেদি মারুফ, কুমারা সাঙ্গাকারা (উইকেটরক্ষক), জহিরুল ইসলাম, মোসাদ্দেক হোসেন, কাইরন পোলার্ড, আবু হায়দার, মোহাম্মদ আমির ও মোহাম্মদ সাদ্দাম।

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স : তামিম ইকবাল (অধিনায়ক), ড্যারেন ব্রাভো, লিটন কুমার দাস (উইকেটরক্ষক), ইমরুল কায়েস, মারলন স্যামুয়েলস, জশ বাটলার, শোয়েব মালিক, মেহেদি হাসান, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, হাসান আলী ও আল-আমিন হোসেন।

Comments

comments